সেবা বঞ্চিত হাওরবাসী: একযুগ ধরে বন্ধ ‘দিরাই ভাটিপাড়া উপস্বাস্থ্য কেন্দ্র’

কালনী ভিউকালনী ভিউ
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৯:২২ PM, ৩০ জুন ২০২১

কালনী ভিউ ডেস্ক::
সরকারের গ্রাম কে শহরে রুপান্তরের ঘোষণার সকল সুযোগ সুবিধা থেকে বঞ্চিত সুনামগঞ্জ জেলার দিরাই উপজেলার ভাটিপাড়া ইউনিয়নবাসী। নেই রাস্তা, নেই স্বাস্থ্য সেবা। মানুষের মৌলিক অধিকারের একটি হচ্ছে চিকিৎসা। কিন্তু এ যেন স্বপ্ন! একটি ইউনিয়নের একমাত্র স্বাস্থ্য কেন্দ্রটি ১ যুগ ধরে বন্ধ আছে, যেন দেখার কেউ নেই!

বলছিলাম সুনামগঞ্জ জেলার দিরাই উপজেলার ভাটিপাড়া উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রের কথা। কাগজে কলমে হাসপাতাল থাকলেও নেই কোন সুযোগ-সুবিধা। নেই ব্লিডিং নেই আসবাবপত্র। ডাক্তার নিয়োগ আছে, সরকারি ওষুধ কে কোথায় কিভাবে বিতরণ করেন তা জানে না এলাকাবাসী।

এ নিয়ে অনেকবার সংবাদ প্রকাশ হলেও হয়েছে, কাজের কাজ কিছুই হয়নি। যেসব ডাক্তারদের পোষ্টিং হয় এই উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রে তাঁরা হাসপাতালের অবস্থা দেখেই বদলীর জন্য মরিয়া হয়ে উঠেন। আর যারা বদলী হতে পারেননি তাঁরা মনের আনন্দে উপজেলা সদরে বসে প্রাইভেট চেম্বারে বসে রুগী দেখেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাক্তার স্বাধীন কুমার দাসের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, আমি নতুন দায়িত্ব পেয়েছি সব জায়গায় যেতে পারছি না কিন্তু সব কিছু দেখে শুনে উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়ন উপস্বাস্থ্য কেন্দ্র কি অবস্থা আছে একটি তালিকা তৈরি করে উপর মহল সংশ্লিষ্ট দপ্তরে প্রেরণ করবো।

এলাকাবাসী জাবির হোসেন চৌধুরী, তারেক মনোয়ার, জুয়েল নুর বলেন, ইউনিয়নের একমাত্র স্বাস্থ্য কেন্দ্রটি একসময় একজন মেডিক্যাল অফিসার, একজন সহকারী মেডিক্যাল অফিসার ছিলেন। সবসময় মানুষ যেকোনো বিপদ-আপদে সেবা নিতে পারতেন।

১২/১৩ বছর ধরে এখানে কোনো ডাক্তার নেই। মানুষ যে কি কষ্টে আছেন তা বুঝাতে পারবো না। একযুগ ধরে বন্ধ চিকিৎসা কেন্দ্রটি। এখন নিজেই রোগী হয়ে আছে। এখানে নেই কোন ডাক্তার, নেই কোন ব্লিডিং। ডাক্তার আইলে ও বসার জায়গা না থাকায় তারাও চলে যাচ্ছেন উপজেলা সদরে।

এতে স্বাস্থ্য সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন হাওর এলাকার ২০ হাজার মানুষ। বিশেষ করে মা ও শিশুর স্বাস্থ্য মারাত্মক হুমকির মুখে। ফার্মেসিতে ও গ্রাম্য ডাক্তারদের উপর নির্ভরশীল। গর্ভবতী মা বোনদের কোনো সমস্যা হলে দিরাই, সুনামগঞ্জ ও সিলেট নিতে নিতে অনেকেই মারা যান অথবা মারাত্মক ঝুঁকিতে পড়েন। আমরা সরকারের স্বাস্থ্যমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করছি অনতিবিলম্বে আমাদের স্বাস্থ্য কেন্দ্রটি সংস্কার করে স্বাস্থ্য সেবা চালু করার যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য।

সুনামগঞ্জ জেলা সিভিল সার্জন ডাক্তার সামসুদ্দিনের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, ভাটিপাড়া উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রটি দীর্ঘদিন ধরে পরিত্যক্ত অবস্থা পড়ে আছে, আমি দায়িত্ব নেয়ার পর এই বিষয়ে সরকারের কাছে সুপারিশ পাঠিয়েছি। আশা করি নতুন করে স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রটি তৈরি করার ব্যবস্থা হতে পারে।

আপনার মতামত লিখুন :